Featured Post Today
print this page
Latest Post

Tumi Jake Valobasho From Praktan Song Lyrics

TUMI JAKE BHALOBASHO ( তুমি যাকে ভালোবাসো )
ANUPOM ROY
Praktan (2016) Bengali Movie
.
.
তুমি যাকে ভালোবাসো, স্নানের ঘরে বাষ্পে ভাসো।
তার জীবনে ঝড়।
তোমার কথার শব্দদূষণ, তোমার গলার স্বর,
আমার দরজায় খিল দিয়েছি,
আমার দারুন জ্বর!

তুমি অন্য কারোর সঙ্গে বেঁধো ঘর।
তোমার নৌকোর মুখোমুখি আমার সৈন্যদল,
বাঁচার লড়াই।
আমার মন্ত্রী খোয়া গেছে, একটা চালের ভুল,
কোথায় দাঁড়াই।
কথার ওপর কেবল কথা,
সিলিং ছুঁতে চায়।
নিজের মুখের আয়না আদল,
লাগছে অসহায়।
তুমি অন্য কারোর ছন্দে বেঁধো গান।

বুকের ভেতর ফুটছে যেন মাছের কানকোর লাল,
এত নরম।
শাড়ির সুতো বুনছে যেন সেই লালের কঙ্কাল,
বিপদ বড়।
কথার ওপর কেবল কথা,
সিলিং ছুতে চায়।
নিজের মুখের আয়না আদল,
লাগছে অসহায়।
তুমি অন্য কারোর ছন্দে বেঁধো গান।


.
.
.
.
.
.
.
.
.
.
.
Tags:- Tags: Kolikata Movie Song lyrics, Prakton Mp3 Songs, Prakton Banglai All Mp3 Songs, Prakton Bangla Mp3 Songs, Dj Remix Mp3 Songs, Prakton Mp3 Songs, Prakton Bangla Movie Mp3 Songs, 
Prakton Songs, Prakton Original CD Rip, New Bangla Movie All Mp3 Songs, New Bangla Movie Mp3 Songs Free Downloads, Prakton Mp3 Songs Download, Prakton Bangla Mp3 Songs, Free Download Prakton Mp3 Songs, Tollywood movie song, proshanjit song, Prakton 128 Kbps mp3 Free Download, Prakton Banglai Movie Mp3 Songs, Prakton All Mp3 Songs,  Prakton Banglai Movie All HD Video Song Download, Prakton All Track List, Prakton (2016) Movie Full, 
Hind Film All Song Download, bangla lyrics,

KEU By MINAR RAHMAN Bangla Lyrics

SONG CREDITS [ Keu ]  :
 Singer: Minar Rahman.
Lyric: Isteaque Ahmed.
Tune: Marcell.
Music: Marcell.
 Label: Eagle Music.



কেউ,  
তোমাকে দিয়েছে কিছু ঘুম । 
আমাকে দিয়েছে রাত জাগা । 
কেউ, 
তোমাকে জড়ালো সে হাওয়ায়, 
জানিয়ে যে গেলো ভালোলাগা । - [ ২ বার ]  

আমি, সেই প্রেমে ,  পথ চেয়ে থাকি, 
বহুরাত জেগেছি একাকী । 

তুমি,  
কাকে খুঁজে যাও বারেবার?  
কার কাছে যেতে পথে নামো । 
কাকে ভেবে ভেবে হেসে ওঠো ? 
কার ডাকে ভুল করে থামো ? 

আমি, সেই প্রেমে ,  পথ চেয়ে থাকি, 
বহুরাত জেগেছি একাকী । 

কার কাছে যাবো বলে দিও ? 
কে আমাকে চিঠি লিখে হায় ? 
আর কত কড়া নেড়ে যাবো ? 
প্রতিদিন ,ভুল দরোজায় .. 

আমি, সেই প্রেমে ,  পথ চেয়ে থাকি, 
বহুরাত জেগেছি একাকী । 

কেউ,  
তোমাকে দিয়েছে কিছু ঘুম । 
আমাকে দিয়েছে রাত জাগা । 
কেউ, 
তোমাকে জড়ালো সে হাওয়ায়, 
জানিয়ে যে গেলো ভালোলাগা ।

.
.
.
.
.
.

Tags:- KEU LYRICS Minar Rahman, MInar New Song, Minar 2017 song list, Bangla Song 2017, 

ঘরে বসেই জিরা পানি তৈরী করার প্রক্রিয়া

ঘরে বসেই জিরা পানি তৈরী করার প্রক্রিয়া
প্রাচীনকাল থেকেই খাদ্যের স্বাদ, গন্ধ বাড়াতে জিরার জুড়ি মেলা ভার। তবে জিরা শুধু খাবারের স্বাদ বাড়ায় না, পাশাপাশি এর আছে নানাবিধ ভেষজগুণ। আয়ুর্বেদ শাস্ত্রেও জিরা ও এর গুণ সম্পর্কে অনেক কথাই লিখা আছে, জিরা পানির কথাও উল্লেখ আছে। আসুন জেনে নিই জিরা ও জিরা পানির গুণাগুণ।

* জিরা দেহের মেটাবলিজম বৃদ্ধি করে।
* জিরা শরীর থেকে টক্সিন দূর করতে সাহায্য করে।
* জিরা পানি খাবারের রুচি কমিয়ে দেয়। তাই ওজন কমাতে, ডায়েটে ১ গ্লাস জিরা পানি সহায়ক ভূমিকা পালন করে।

* যাদের কোষ্ঠকাঠিন্য এর সমস্যা আছে, তারা সকালে খালি পেটে চিনির বদলে মধু দিয়ে জিরা পানি পান করলে কোষ্ঠকাঠিন্য এর সমস্যা দূর হবে।
* জিরায় আয়রন আর কিছু মিনারেল আছে। প্রতিদিন সকাল সন্ধ্যায় দুই গ্লাস জিরা পানি পান করলে রক্তে হিমোগ্লোবিন এর অভাব এর জন্য সৃষ্ট রক্তশূন্যতা কমবে।

* জিরায় আছে থাইমেল নামক উপাদান। যা পাকস্থলীর শক্তি বৃদ্ধিতে সাহায্য করে।

* হজম শক্তি বৃদ্ধিতে জিরার জুড়ি মেলা ভার। তাই তেল-মসলা জাতীয় খাবার খাওয়ার পর বাজারের কোল্ডড্রিংস না খেয়ে ফ্রিজে রাখা বা বরফকুচি দিয়ে জিরা পানি খেতে পারেন। এতে হজম ও ভালো হবে, অতিথি বা ঘরের মানুষের মনও জুড়াবে।

* ঠান্ডায় গলা ব্যথা হলে, চায়ের মতো করে গরম জিরা পানি খান। বা গড়গড়া করুন। আরাম পাবেন।

 জিরা পানি তৈরির পদ্ধতি :


১। আধা লিটার পানিতে এক চামচ জিরা নিন। ইচ্ছে করলে জিরা গুঁড়া করে নিতে পারেন। সাশ্রয় হবে।

২। ১০-১৫ মিনিট ভালো মতো ফুটিয়ে ঠান্ডা করে নিলেই হয়ে গেল জিরা পানি।

৩। কিন্তু এভাবে খেলে কোনো স্বাদ লাগবে না। তাই স্বাদ বাড়াতে পরিমাণ মতো লবণ, চিনি বা মধু, লেবুর রস দিন।

৪। ইচ্ছে করলে তেতুঁল এর টক ও বিট লবণ দিতে পারেন। স্বাদ আরো বেড়ে যাবে।

৫। পরিবেশনের আগে ফ্রিজে রেখে দিন বা বরফকুচি মেশাতে পারেন। বরফকুচি মেশালে লবণ বা চিনির পরিমাণ আরেক বার দেখে নিতে পারেন।

.
.
.
.
.
.
Tags:-  জিরা পানি খাওয়ার নিয়ম, জিরা পানি ওজন কমায়, জিরা পানি রেসিপি, মেদ কমাতে জিরা, জিরা উপকারিতা, জিরা পানির অপকারিতা, জিরার অপকারিতা, ওজন কমাতে জিরা, jera pani,  Jeera Water Recipe For Weight Loss or Cumin Water Drink, 15 Best Benefits and Uses Of Cumin Water (Jaljeera) For Skin, Hair,
A Welcome Drink for Summer Parties – Refreshing Jeera Pani, Jeera Pani recipe, How to make Jeera Pani,
What is cumin water? , How do you make Jaljeera?, What do you use cumin for?
What are the health benefits of cumin?, Pudina Jeera Pani, Punjabi Pudina Jeera Pani Recipe,
jeera water side effects, jeera water recipe, jeera benefits in ayurveda , jeera water during pregnancy,
jeera pani bangladesh, how jeera help to reduce weight,

অবশেষে বিয়ে ও সন্তানের কথা স্বীকার করলেন শাকিব খান

২০০৮ সালের এপ্রিল মাসে বিয়ের পিঁড়িতে বসেছিলেন শাকিব-অপু। দীর্ঘদিনের ঘর-সংসারও তাদের। বিয়ের বয়স এখন প্রায় ৯ বছর চলছে। মুসলিম রীতি অনুযায়ী সম্পন্ন হওয়া বিয়েতে হিন্দু ধর্মাবলম্বী অবন্তী বিশ্বাস অপুর নাম কাবিননামায় ‘অপু ইসলাম খান’ নামে লিপিবদ্ধ করা হয়।
সুদীর্ঘ ৯ বছর সংসার জীবনে শাকিব খানের বাবা হওয়া তথা অপু বিশ্বাসের মা হওয়ার কোনো সংবাদ পায়নি মিডিয়া। তবে আজ ১০ এপ্রিল সোমবার বিকেল ৪টায় দেশের একটি বেসরকারি টিভি চ্যানেলে সাক্ষাৎকার দিতে এসে, এক প্রকার হাটে হাঁড়ী ভেঙে দেন শাকিবপত্নী অপু। এতদিন অপু বিশ্বাস গোপনে আগলে রেখেছিলেন শাকিব খানের ঔরস জাত সন্তানকে। কলকাতার একটি ক্লিনিকে ২০১৬ সালের ১৭ সেপ্টেম্বর জন্ম হয় শাকিব-অপুর ছেলে আব্রাহাম খান জয়ের।
আমি অপুর এমন অনুষ্ঠানের বিষয়টিতে ক্ষুদ্ধ আব্রাহাম আমার সন্তান অবশ্যই আমি তার দায়িত্ব নেব কিন্তু অপুর দায়িত্ব আমি নেব না অপু আমাকে অসম্মান করল সে আমার ক্যারিয়ার ধ্বংস করার দিক ওপেন করলএভাবেই বললেন শাকিব খান।

চিত্রনায়িকা অপু বিশ্বাস একটি বেসরকারি টিভি চ্যানেলে হাজির হয়ে বিয়ে সন্তানের কথা স্বীকার করলে ক্ষুদ্ধ হন শাকিব। আর সরাসরি অনুষ্ঠানের মাধ্যমে বিয়ে আর সন্তানের কথা বলায় নাখোশ হয়েছেন তিনি।
অপু বিশ্বাস যখন সরাসরি অনুষ্ঠানের মাধ্যমে শাকিবের সঙ্গে তার সম্পর্কের কথা জানাচ্ছিলেন, তখন রাজধানীর একটি হোটেলে শরীরচর্চায় ব্যস্ত ছিলেন শাকিব খান। শাকিব খান বলেন, ‘আব্রাহামের দায়িত্ব আমি নিয়ে যাব। সে আমার সন্তান। সারা জীবন তার দায়িত্ব আমি নিয়ে যাব।
অপু বিশ্বাস জানান, ২০০৮ সালের ১৮ এপ্রিল গুলশানে শাকিব খানের বাসায় বিয়ে হয় তাদের। এসময় তাদের পরিবারের সদস্য ছাড়াও এক প্রযোজক উপস্থিত ছিলেন। ফরিদপুরের ভাঙ্গা থেকে শাকিব খানের আনা এক কাজি তাদের বিয়ে নিবন্ধন করেন। মুসলিম রীতিতে বিয়ে হওয়ায় অপু বিশ্বাসের নাম পরিবর্তন করে রাখা হয় অপু ইসলাম খান।

শাকিব খানের ইচ্ছাতেই বিয়ের বিষয়টি এতদিন গোপন রাখা হয়েছিল বলেও জানান অপু।
নিজের ঔরসজাত সন্তানকে শাকিব খান যেন না ঠকান কাঁদতে কাঁদতে সেই অনুরোধ করেছেন অপু বিশ্বাস।
১০ এপ্রিল সোমবার দেশের একটি বেসরকারি স্যাটেলাইট চ্যানেলে লাইভে এসে নিজের বিয়ে সন্তান জন্মের কথা জানান অপু বিশ্বাস।
সময় তিনি বলেন, ‘শাকিব যদি এই অনুষ্ঠান দেখে থাকে তবে ওর (শাকিবের) দায়িত্ব হবে দূর থেকে ওকে (ছেলেকে) আদর করে দেওয়া। বাবা হয়ে আমার ছেলেকে যেন না ঠকায়।
দীর্ঘদিন নিজেকে আড়াল করে রাখার কথা উল্লেখ করে অপু বিশ্বাস বলেন, ‘পাঁচ মাস হয় ঢাকায় এসেছি। দীর্ঘ নয় মাস আমি কলকাতা, ব্যাংকক সিঙ্গাপুরে ছিলাম।
অপু আরও বলেন, ‘তাদের আশপাশে তো অনেক লোক আছে, তারাও তো বাবা। তারাও তো তাদের সন্তানদের আদর করে। আমি কী অন্যায় করেছি যার জন্য এত শাস্তি পেতে হলো?’
তিনি জানান, প্রেম থেকেই ২০০৮ সালের ১৮ এপ্রিল গুলশানে শাকিব খানের বাসায় বিয়ে হয় তাদের। এসময় তাদের পরিবারের সদস্য ছাড়াও এক প্রযোজক উপস্থিত ছিলেন। ফরিদপুরের ভাঙ্গা থেকে শাকিব খানের আনা এক কাজি তাদের বিয়ে নিবন্ধন করেন। মুসলিম রীতিতে বিয়ে হওয়ায় অপু বিশ্বাসের নাম পরিবর্তন করে রাখা হয় অপু ইসলাম খান।
অপু বিশ্বাস জানান, শাকিব খানের ইচ্ছাতেই বিয়ের বিষয়টি এতদিন গোপন রাখা হয়েছিল।
তিনি বলেন, ‘ওর (শাকিব) কারণেই আমি সব গোপন রেখেছি। অামি অনেক ছাড় দিয়েছি, বিনিময়ে কিছুই পাইনি।
নিজেকে ঠকালেও নিজের সন্তানকে ঠকাতে পারছেন না অপু। তিনি বলেন, ‘সম্পর্কের কথা গোপন রেখে আমি নিজেকে ঠকালেও আমার সন্তানকে ঠকাতে চাই না
 curtesi priyo.com

প্রযুক্তি আমাদের কি মিলাচ্ছে, আর কি পাচ্ছি আমরা !

প্রযুক্তি আমাদের কি মিলাচ্ছে, আর কি পাচ্ছি আমরা !

মোবাইলের রেডিয়েশনের কারণে ক্যান্সারে ঝুঁকি বাড়ে সেটা সবারই জানা।
আচ্ছা, মোবাইল ফোন কি আমাদের এতটাই দরকার ছিল যে আমরা ক্যান্সারকেও বরণ করে নিতে পারি?
বিভিন্ন রকম অস্ত্র মুহূর্তেই হাজার হাজার জীবন কেড়ে নিচ্ছে। অস্ত্রীক নিরাপত্তা কি আমাদের এতই দরকার ছিল যে আমরা মরণঅস্ত্র তৈরি করেছি?
আমাদের খাওয়ার কথা ছিল গ্রীষ্মের গাছ পাকা আম। তা না করে আমরা কেমিকেল দিয়ে বোতলে ভরে সারা বছর খাওয়ার উপায় বের করেছি।

আসলেই আমাদের সারাবছর আম খাওয়ার দরকার ছিল?
বিশ্বাস করুন, প্রযুক্তি আমাদের কখনোই ভালো কিছু উপহার দেয় নি। আমরা ভাবছি দ্রুত যোগাযোগ ব্যবস্থা আমাদের জীবনকে গতিময় করছে।
কিন্তু না!
প্রকৃতপক্ষে আমাদের জীবনের গতি বাড়িয়ে মৃত্যুকে কাছে এনে দিয়েছে।
যখন প্রযুক্তি ছিল না, তখন কি মানুষ বাঁচেনি?
মানুষের মনে কি সুখ ছিল না?
আমরা জানি যে পোলিও-কলেরা টাইপের মরণ-ঘাতী ব্যাধি থেকে বাঁচার জন্য আবিষ্কৃত টিকা প্রযুক্তির অবদান।
অথচ, অতীতে মানুষের আয়ু বর্তমানের চাইতে অনেক বেশি ছিল।
হয়তো আমরা নিজেরাও জানি না যে এক রোগের টিকা দিয়ে অন্য রোগ বাধিয়ে ফেলেছি! কারণ এমন কোন ওষুধ হতে পারে না যার কোন পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া নেই।
পায়ে হাটা বাদ দিয়ে পৃথিবীর বুক চিরে তেল বের করছি গাড়ি চড়ার জন্যে।
ভিতরটা যদি খালি করে দেই, উপরের কিছু কি ঠিকঠাক থাকবে?
একদিন গাড়ি সহ ধপাস করে ভেঙে নিচে পরে যেতে হবে।
একদিন আমরা বুঝতে পারবো প্রযুক্তি আমাদের কি ক্ষতি করেছে। কিন্তু সেদিন সংশোধনের কোন উপায় থাকবে না।
ডায়নাসোরের মত বৃহৎ প্রাণী পৃথিবী থেকে হারিয়ে গেছে নিজেদের পৃথিবীর সাথে খাপ খাওয়াতে পারেনি বলে। আর পৃথিবীই একদিন হারিয়ে যাবে মানুষের সাথে খাপ খাওয়াতে পারবে না বলে।
পৃথিবীকে প্রায় "খেয়ে" দিয়ে আমরা বুদ্ধি খুঁজছি মঙ্গলে পালানোর।
কিন্তু মঙ্গল কি আদৌ তার বোনের শত্রুদের নিজের বুকে স্থান দিবে ?
.
.
.
Courtesy From facebook post
Written by
Tanvir Israq
.
.


Tags:-  
Technique , future plan, 

কক্সবাজারে নির্মিত হচ্ছে বিশ্বমানের রেল স্টেশন

বিশ্বের দীর্ঘতম সমুদ্র সৈকত কক্সবাজারে নির্মিত হচ্ছে আন্তর্জাতিক মানের রেল স্টেশন। বিশ্বের বিভিন্ন দেশ থেকে পর্যটক আকর্ষণ করার জন্যই সেখানে আইকনিক ইন্টারন্যাশনাল রেলওয়ে স্টেশন নির্মাণের পরিকল্পনা নেওয়া হয়েছে। ঝিনুক আকৃতির এ স্টেশন দেখলেই বোঝা যাবে এটি সমুদ্র সৈকতের স্টেশন। স্টেশনটির অবস্থান হবে কক্সবাজার বাস টার্মিনালের বিপরীতে চৌধুরীপাড়ায়।

রেলওয়ে সূত্র জানিয়েছে, চলতি বছরের জুন মাসেই রেলস্টেশন ও দোহাজারী-কক্সবাজার রেল লাইনের নির্মাণকাজ শুরু হতে পারে। প্রথমে রেললাইন হবে চট্টগ্রামের দোহাজারী থেকে রামু পর্যন্ত। রামু হবে জংশন। আর সেখান থেকে একটি লাইন চলে যাবে কক্সবাজার সমুদ্র সৈকতে। তখন ঢাকা থেকে সরাসরি ট্রেনে পৌঁছানো যাবে কক্সবাজারে। পরবর্তী সময়ে কক্সবাজার থেকে আরেকটি লাইন পূর্ব দিকে যাবে মিয়ানমারের কাছে ঘুমধুমে। ২০২০-২২ সালের মধ্যেই সব কাজ শেষ হওয়ার কথা। আর এর মাধ্যমে আন্তর্জাতিক রেল নেটওয়ার্ক ট্রান্স এশিয়ান রেলওয়েতে যুক্ত হবে বাংলাদেশের রেলপথ। এ রেলওয়ে নেটওয়ার্ক মিয়ানমার-বাংলাদেশ-ভারত-পাকিস্তান-ইরান হয়ে যাবে ইউরোপের তুরস্ক পর্যন্ত।

বাংলাদেশ রেলওয়ে মন্ত্রণালয়ের সচিব ফিরোজ সালাহউদ্দিন বলেন, রেলওয়ের দোহাজারী হতে রামু হয়ে কক্সবাজার এবং মিয়ানমারের নিকটে ঘুমধুম পর্যন্ত প্রকল্পটি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ৮টি অগ্রাধিকার প্রকল্পের একটি। তাই এ প্রকল্পটির দ্রুত বাস্তবায়নের ক্ষেত্রে বিশেষভাবে গুরুত্ব দেওয়া হচ্ছে। তিনি বলেন, আশা করা যায়, চলতি বছরের জুন অথবা জুলাই মাসের মধ্যে পুরোদমে এ প্রকল্পের কাজ শুরু হবে। আর এটা শেষ হলে শুধু দেশ নয়, বিদেশ থেকেও হাজার হাজার পর্যটক কক্সবাজারসহ চট্টগ্রামে জড়ো হবে। তিনি আরো বলেন, এ প্রকল্পের সবচেয়ে আকর্ষণীয় স্থাপনা হবে ঝুিনক আকৃতির কক্সবাজার রেলস্টেশন।

রেলওয়ে সূত্রে জানা যায়, প্রস্তাবিত রেললাইনের ‘রুট এলাইনমেন্ট’ পিলার দিয়ে চিহ্নিত করা হয়েছে। চলছে জমি অধিগ্রহণ কাজ। উঁচু-নিচু টিলা, বনভূমি ও সমতল সবুজ প্রান্তর পেরিয়ে রেললাইনটি শেষ হবে সমুদ্রতীরের একেবারে কাছে। এ জন্য ইতোমধ্যে পরিবেশ অধিদফতর ও বন বিভাগের অনাপত্তিপত্র নেওয়া হয়েছে। এ রুটে ১৪০ কিলোমিটার নতুন ‘ডুয়েল গেজ’ রেললাইন নির্মাণ করা হবে। বনভূমির যেসব স্থানে বন্যপ্রাণী ও হাতির বিচরণ এলাকা, সেসব স্থান চিহ্নিত করে ‘প্যাসেজ’ নির্মাণ করা হবে। দোহাজারী থেকে কক্সবাজার পর্যন্ত থাকবে ৯টি রেলস্টেশন। এগুলো হবে দোহাজারী, সাতকানিয়া, লোহাগাড়া, হারবাং, চকরিয়া, ডুলাহাজারা, ইসলামাবাদ, রামু ও কক্সবাজার। তবে কক্সবাজারের প্রস্তাবিত রেলস্টেশন এলাকা এখনো ধানি জমি। রেলওয়ে কর্তৃপক্ষ চৌধুরীপাড়ার ওই স্থানটি চিহ্নিত করে রেখেছে। রামু থেকে চৌধুরীপাড়ায় কক্সবাজার স্টেশনে আসতে লাইনের দুটি স্থানে সড়ক ক্রসিং থাকবে।

প্রকল্প পরিচালক মফিজুর রহমান বলেন, চলতি বছরের এপ্রিল-মে মাসে এডিবির সঙ্গে প্রকল্প চুক্তি হলে জুন-জুলাই মাসেই শুরু হবে কাজ। ইতোমধ্যে দোহাজারী থেকে রামু পর্যন্ত ১০০ কিলোমিটার রেলপথ নির্মাণকাজ দু ভাগে বিভক্ত করে দরপত্র আহ্বান করা হয়েছে। প্রথম ভাগে দোহাজারী থেকে চকরিয়া পর্যন্ত ট্র্যাক নির্মাণ, রেলের সিগন্যালিং ও টেলিকমিউনিকেশন কাজ করা হবে। পরে চকরিয়া থেকে রামু হয়ে কক্সবাজার পর্যন্ত ট্র্যাক নির্মাণ এবং কক্সবাজার রেলস্টেশন নির্মাণ করা হবে।

প্রকল্প পরিচালক জানান, দরপত্র বাছাই শেষে সম্মতির জন্য এডিবির কাছে পাঠানো হয়েছে। আর কনসালট্যান্ট নিয়োগের প্রস্তুতি চলছে। এডিবির সম্মতির পর ‘প্রাইস বিডিং’ করা হবে। সর্বনিম্ন দরদাতা ঠিক করে সেটি আবার এডিবিতে পাঠানো হবে। তারপর মন্ত্রিসভায় চূড়ান্ত অনুমোদনের জন্য পাঠানো হবে। আর মন্ত্রিসভা অনুমোদন করলে ঠিকাদারকে ওয়ার্ক অর্ডার দেওয়া হবে।

New Collected From: -  DAILY ITTEFAQ 
.
.
.

Tags:- Cox bazar, sea beach in bangladesh, rail station, bangladesh tour, dhaka to cox-bazar, 

YouTube's new ad placement rules aim at cheaters

ইউটিউবে অর্থ আয়, দরকার হবে ১০ হাজার ভিউ


১০ হাজার ভিউ পাওয়ার আগ পর্যন্ত নিজেদের চ্যানেল থেকে অর্থ আয় করতে পারবেন না ভিডিও শেয়ারিং সাইট ইউটিউব-এর ভিডিও সরবরাহকারীরা, বৃহস্পতিবার এ তথ্য জানায় মার্কিন প্রযুক্তি জায়ান্ট অ্যালফাবেট মালিকানাধীন গুগলের এই প্রতিষ্ঠানটি।

কোনো একটি চ্যানেল এই সীমায় পৌঁছানোর পর চ্যানেলটি প্রতিষ্ঠানের কোনো নীতিমালা লঙ্ঘন করে কিনা তা যাচাই করে দেখবে ইউটিউব। এ যাচাইয়ের মাধ্যমে প্রতিষ্ঠানটি দেখবে ওই চ্যানেল অর্থ আয় করার উপযুক্ত কিনা, বলা হয়েছে ব্যবসা-বাণিজ্যবিষয়ক মার্কিন সাইট বিজনেস ইনসাইডার-এর প্রতিবেদনে।

প্রতারণার মাধ্যমে কনটেন্ট নির্মাতারা এই প্লাটফর্ম থেকে অর্থ আয় করে প্রতিষ্ঠানের নীতিমালা লঙ্ঘন করছেন বলে অভিযোগ রয়েছে। এ ক্ষেত্রে এমন কনটেন্ট সরবরাহকারীদের নিরুৎসাহিত করার সহায়তায় নতুন এই পদক্ষেপ নেওয়া হয়েছে বলে এক ব্লগপোস্টে প্রতিষ্ঠানটির পক্ষ থেকে জানানো হয়।

ইউটিউব-এর পণ্য ব্যবস্থাপনাবিষয়ক ভাইস প্রেসিডেন্ট অ্যারিয়েল বারডিন বলেন, “কয়েক সপ্তাহের মধ্যে, ইউটিউব পার্টনার প্রোগ্রাম (ওয়াইপিপি)-এর জন্য আবেদন করা নতুন নির্মাতাদের জন্য আমরা একটি যাচাই প্রক্রিয়া চালু করতে যাচ্ছি। একজন নির্মাতা তার চ্যানেলে ১০ হাজার লাইফটাইম ভিউ পাওয়ার পর আমরা তাদের কার্যক্রম আমাদের নীতিমালা লঙ্ঘন করে কিনা তা যাচাই করব।”

“যদি সবকিছু ঠিক থাকে, আমরা ওই চ্যানেলকে ওয়াইপিপি-তে নিয়ে আসব আর তাদের কনটেন্টে বিজ্ঞাপন দেওয়া শুরু করব। নতুন এই সীমার মাধ্যমে নীতিমালা মেনে চলা নির্মাতারাই যে শুধু অর্থ আয় করছেন তা নিশ্চিত হবে।”

ধর্ষণ সমর্থক, ইহুদিবিদ্বেষ আর ঘৃণা প্রচারকদের তহবিল যোগাতে ব্যবহৃত হচ্ছে কিছু বিজ্ঞাপন- সম্প্রতি এমন অভিযোগের মুখে পড়ে ইউটিউব। এর ফলে গুগল সার্চ থেকে আড়াইশ’রও বেশি প্রতিষ্ঠান তাদের বিজ্ঞাপন সরিয়ে নেয়, একই পদক্ষেপ নেয় যুক্তরাজ্য সরকারও।

এ নিয়ে চলতি বছর মার্চে গুগলের অ্যালগরিদম এমন ভুল আর করবে না- এ বিষয়টি নিশ্চিত করতে পারবেন কিনা জানতে চাইলে অ্যালফাবেট প্রধান এরিক স্মিড বলেন, “আমরা এর নিশ্চয়তা দিতে পারব না, কিন্তু আমরা এর খুব কাছাকাছি যেতে পারি।”

তিনি জানান, গুগল ম্যানুয়ালি বিজ্ঞাপন মেলানো আর নীতিমালা লঙ্ঘন যাচাইয়ে সময় বাড়িয়েছে। আশা করা যায়, গুগল এমন পণ্য তৈরি করতে পারবে যা উগ্রপন্থী কনটেন্টগুলোকে র‍্যাংকিংয়ে এমনভাবে নিচে নামাবে যা সামাজিক মাধ্যমগুলোর চেয়েও ভালোভাবে হবে। তিনি বলেন, “কোনটি সবচেয়ে বেশি উপযুক্তি আর কোনটি সবচেয়ে কম তা শনাক্ত করতে আমরা খুবই ভালো। কম্পিউটারের জন্য ক্ষতিকর, ভুল পথে নিতে পারে এমন আর ভুল তথ্য শনাক্ত করা সম্ভব হওয়া উচিত।”

“আমরা সেন্সররশিপ নিয়ে বলছি না, আমরা শুধু এগুলোকে পেইজ থেকে সরিয়ে নিয়ে অন্য কোথাও রাখার কথা বলছি… যাতে এগুলো খুঁজে পাওয়া কঠিন হয়। আমি মনে করি আমরা ঠিক পথে যাচ্ছি”- বলেন তিনি।



.
.
Tags:- Earn Money from youtube, Youtube new rules, youtube bangla, How can i earn money from youtube, earn money from youtube, online earning way, online earn. 

IPL 10 Purple Cap Holders, Most Wickets by Bowler IPL 2017

LAST UPDATE:- 08/04/2017
IPL 10 Purple Cap Holders, Most Wickets by Bowler IPL 2017


Most wicket tacker bowler list

Pos
Player
Mat
Inns
Wkts
Overs
Runs
BBI
Avg
Econ
1
 RPS
1
1
3
4.0
28
3/28
9.33
7.00
2
 Rising Pune Supergiant
1
1
2
3.0
14
2/14
7.00
4.66
3
 Kolkata Knight Riders
1
1
2
4.0
25
2/25
12.50
6.25
4
 Sunrisers Hyderabad
1
1
2
4.0
27
2/27
13.50
6.75
5
 Sunrisers Hyderabad
1
1
2
4.0
36
2/36
18.00
9.00
6
 Sunrisers Hyderabad
1
1
2
4.0
42
2/42
21.00
10.50
7
 Sunrisers Hyderabad
1
1
1
1.0
4
1/4
4.00
4.00
8
 Royal Challengers Bangalore
1
1
1
4.0
22
1/22
22.00
5.50
9
 Sunrisers Hyderabad
1
1
1
1.0
7
1/7
7.00
7.00
10
 Royal Challengers Bangalore
1
1
1
4.0
31
1/31
31.00
7.75
11
 Mumbai Indians
1
1
1
4.0
34
1/34
34.00
8.50
12
 Rising Pune Supergiant
1
1
1
3.0
26
1/26
26.00
8.66
13
 Rising Pune Supergiant
1
1
1
4.0
36
1/36
36.00
9.00
14
 Mumbai Indians
1
1
1
4.0
36
1/36
36.00
9.00
15
 Mumbai Indians
1
1
1
4.0
36
1/36
36.00
9.00
16
 Royal Challengers Bangalore
1
1
1
1.0
10
1/10
10.00
10.00
17
 Kolkata Knight Riders
1
1
1
4.0
40
1/40
40.00
10.00
18
 Royal Challengers Bangalore
1
1
1
4.0
55
1/55
55.00
13.75
19
 Gujarat Lions
1
1
0
2.0
13
0/13
-
6.50
20
 Mumbai Indians
1
1
0
4.0
29
0/29
-
7.25
21
 Kolkata Knight Riders
1
1
0
2.0
16
0/16
-
8.00
22
 Kolkata Knight Riders
1
1
0
2.0
18
0/18
-
9.00
23
 Sunrisers Hyderabad
1
1
0
3.4
35
0/35
-
9.54
24
 Gujarat Lions
1
1
0
3.0
30
0/30
-
10.00
25
 Gujarat Lions
1
1
0
4.0
40
0/40
-
10.00
26
 Sunrisers Hyderabad
1
1
0
2.0
20
0/20
-
10.00
27
 Mumbai Indians
1
1
0
2.0
21
0/21
-
10.50
28
 Rising Pune Supergiant
1
1
0
2.0
21
0/21
-
10.50
29
 Royal Challengers Bangalore
1
1
0
1.0
11
0/11
-
11.00
30
 Kolkata Knight Riders
1
1
0
3.0
35
0/35
-
11.66
31
 Royal Challengers Bangalore
1
1
0
3.0
36
0/36
-
12.00
32
 Royal Challengers Bangalore
1
1
0
3.0
41
0/41
-
13.66
33
 Rising Pune Supergiant
1
1
0
4.0
57
0/57
-
14.25
34
 Gujarat Lions
1
1
0
2.5
42
0/42
-
14.82
35
 Kolkata Knight Riders
1
1
0
1.0
15
0/15
-
15.00
36
 Gujarat Lions
1
1
0
2.0
32
0/32
-
16.00
37
 Mumbai Indians
1
1
0
1.5
30
0/30
-
16.36
38
 Gujarat Lions
1
1
0
1.0
23
0/23
-
23.00


.
Tags:- Most wicket takes in ipl 2017, ipl 2017 bowler list, wicket taker list in ipl 2017

 
Helped By : www.everythinginherenet.blogspot.com/ | Everything in here | Download This Template
Copyright © 2011. Everything In Here - All Rights Reserved
Template Created by Esstha Published by Everything in here
Proudly powered by Blogger